ব্লগার ব্লগে ভিসিটরদের সঙ্গে ডায়রেক্টলী চ্যাটিং কারার জন্য Yahoo Messenger Budget

Notice : – টাইম এবং অদ্যার কিছু প্রবলেমের কারনে ওয়ার্ডপ্রেস্যের এই ব্লগটিতে আমি কমপ্লিট পোস্ট লিখতে পারছি না। এখানে পোস্ট হেডলাইনের সঙ্গে সামান্য কিছু কনটেন্ট টাইপ করা আছে এবং কমপ্লিট পোস্টের লিঙ্ক হিসাবে মাই বিট্রীক ব্লগের লিঙ্ক প্রোভাইড করা আছে। এই ম্যাটারটির জন্য সমস্ত ভিসিটরদের কাছে স্যরি।

আমার আগের পোস্টে ব্লগারে কীভাবে Google Talk Budget ক্রিয়েট এবং ডীসপ্লে করা সেই ব্যাপারে একটি পোস্ট লিখেছিলাম।Google Talk Budget ব্লগে ড্যায়রেক্টলী ব্লগ এডমিনের অনলাইন এবং অনলাইন স্ট্যাটাস ডীসপ্লে করে থাকে।এখানে Yahoo Messenger বা এর স্ট্যাটাস ব্লগার ব্লগে কীভাবে এড করা যায় সেই প্রস্যেসটিই এই পোস্টে এক্সপ্লেন করা হয়েছে।Google Talk এর সঙ্গে yahoo messenger ওয়ার্ল্ডের একটি ফ্যেমাস অনলাইন চ্যাটিং বা কমিউনিক্যেশন স্যিস্টেম।এই প্রস্যেসের মাধ্যমে ব্লগে ডীসপ্লে করা Yahoo Messenger আইকনের মাধ্যমে ভিসিটর ডায়রেক্টলী ব্লগ এডম্যিনের সঙ্গে চ্যাটিং করতে পারবে।এক্সস্যামপ্যেল হিসাবে My Btrick ব্লগের Yahoo Messenger আইকন দেখা যাবে।Read the rest of this entry »

Advertisements

ওয়েবসাইট বা ব্লগের জন্য ইস্যিলী Twitter follow badge ক্রিয়েট করা

101 go2web20 একটি সুপার্ব ওয়েবটূল যার মাধ্যমে ইস্যিলী ওয়েবসাইট বা ব্লগের জন্য Twitter follow badge ক্রিয়েট করা যাবে।এই ওয়েবটূলটির মাধ্যমে নিজের Twitter follow badge কে কাস্টমাইজ করা যাবে এবং পছন্দমত কাস্টমাইজ কমপ্লিট হলে কোড পাওয়া যাবে যেটিকে ওয়েবসাইট বা ব্লগে প্লেস করলে কূল Twitter follow badge ডিসপ্লে করবে।go2web20 সাইটিতে ভিসিট করে Twitter ইউস্যার আইডী দিতে হবে।এর নিচে Lable ড্রপ ডাউন বক্স থেকে ডিসপ্লে টেক্সট,Color থেকে follow badge কে কাস্টমাইজ করা যাবে। এখন ডিসপ্লে সাইড এবং সাইজ় কাস্টমাইজ করে Update ট্যাবে ক্লিক করলেই ওয়েবসাইট বা ব্লগে ডিসপ্লে করার জন্য কোড পাওয়া যাবে।Read the rest of this entry »

পোস্ট উইথ ব্লগার মান্থ সীস্যন

আমার ব্লগ রাইটিং স্ট্রার্ট করেছি WordPress দিয়ে তাই ব্লগার ব্লগ সম্পর্কে সে রকম কোন এক্সপ্যারিয়েন্স ছিল না।রিসেন্টলী আমার ডীফ্লট ব্লগ My Btrick রিলিস হয়েছে।ব্লগার ব্লগ সম্পর্কে তেমন কোন এক্সপ্যারিয়েন্স না থাকার জন্য ব্লগটির কাস্টমাইজেসন এন্ড ডেভলপিং এর জন্য প্রায় তিন মাস লেগে গেল My Btrick ব্লগটির সঙ্গে কাজ করতে গিয়ে ব্লগারের বিভিন্ন রকম ট্রিক এবং নতুন অনেক কিছু শিখতে পারলাম.তাই ডীসাইড করেছি এই মান্থটি ব্লগারের বিভিন্ন রকম টিপস এন্ড ট্রীক এবং  এর কাস্টমাইজেসন সম্পর্কে পোস্ট লিখবো।এক্সপেক্ট করছি আমার ব্লগের ভিসিটরদের পোস্ট উইথ ব্লগার মান্থ সীস্যনটি ভাল লাগবে এবং সকলেই ইনজয় করবেন। Read the rest of this entry »

উইন্ডোস এক্সপিতে একটি ক্লিকেই মাল্টিপ্লাই এপ্লিকেশন রান করা

image কমপিউটার ইউস্যারদের মধ্যে অনেকেরই ডেলী ইউস্যের জন্য কিছু এপ্লিকেশন এভ্রিডে রান করতে হয়।যেমন আমি এভ্রিডে পিসি অন করার সঙ্গে নেট ইউস্যের জন্য  ফ্যায়ারফক্স,বাংলা রাইটিং এর জন্য Avro Keyboard,চ্যাটিং এর জন্য Yahoo Messenger,প্যাসওয়ার্ড ম্যানেজ করার জন্য Kee Pass এবং মিডীয়া প্লেয়ারের জন্য Vlc এই সমস্ত এপ্লিকেশনগুলি রান করে থাকি।এই সমস্ত এপ্লিকেশনগুলিকে একটি একটি করে রান করতে বিরক্ত লাগে এবং এর পিছনে টাইম বেশী লস হয়ে থাকে।আমার আগের একটি পোস্টে Utility Luncher নামের একটি এপ্লিকেশনের কথা লিখেছিলাম,যার মাধ্যমে মাল্টিপ্লাই এপ্লিকেশন সহজেই রান করা যায়।কোন রকম এপ্লিকেশন ইউস না করে মাল্টিপ্লাই এপ্লিকেশনগুলিকে কীভাবে একটি ক্লিকে রান করা যেতে পারে সেই প্রস্যেসটিই এই পোস্টে এক্সপ্লেন করা হয়েছে। Read the rest of this entry »

কমপ্লিট হল আমার My Btrick ব্লগ [ http://mybtrick.blogspot.com ]

প্রায় একমাস হয়ে গেল আমার ব্লগটিতে কোন পোস্ট রাইট করতে পারিনি এমনকী WordPress এ অদ্যার ব্লগারদের ব্লগেও ভিসিট করার টাইম পাইনি। এভ্রি ভিসিটর এন্ড WordPress ব্লগারদের কাছে এই ম্যাটারটির জন্য স্যরি।আসলে Blogspot এ আমার অদ্যার একটি ব্লগ ডেভলপিং এর জন্য বিস্যি ছিলাম।আমার অনেকগুলি পোস্টেই লেখা হয়ে গেছে যে WordPress এর স্পীড এবং অদ্যার ফেস্যালীটির চেয়ে Blogger ফ্যার বেটার। Blogger এ ফ্রীলি ব্লগ কাস্টমাইজেসনের যে ধরনের ফেস্যালীটিস আছে সেই ফ্রীডম WordPress এ পাওয়া যায় না।অনেক দিন ধরেই Blogger এর একটি ব্লগকে ডীফল্ট ভাবে ইউস করবো ভাবছিলাম শেষ অবধী এই কাজটি করেই ফেললাম।ফুল কাস্টমাইজেসনের জন্য প্রায় টু-মান্থ লেগে গেলো এন্ড এখনও কীছু কাজ পেন্ডিং রয়েছে।পেন্ডিং থাকলেও 85% কাম আমি কম্পলিট করেছি তাই ভিসিটরদের জন্য http://mybtrick.blogspot.com নামের আমার নিউ Read the rest of this entry »

কীভাবে সমস্ত এপ্লিকেশনকে পোর্টবলে পরিনত করা যায় ইউ-এস-বি স্টিকের জন্য?

1এর আগে অনেক পোর্টবেল এপ্লিকশনের  কথা বলেছি বা আপনার নিজেরও জানা অনেক পোর্টবেল এপ্লিকশন থাকবে।আজ আমার এই পোস্টটিতে আলোচনার বিষয় বস্তু হচ্ছে কীভাবে যে কোন সফটওয়্যার বা এপ্লিকেশনকে পোর্টবেল এপ্লিকেশনে পরিনত করে পকেটে মানে ইউ-এস-বি তে নিয়ে ঘোরা যায়।আমার আগের একটি টিপসে পোর্টবেল সার্টমেনুর কথা বলে ছিলাম এবং এটির মধ্যে কিভাবে এক্সট্রা এপ্লিকেশন এড করা যায় তা নিয়ে আলোচনা করেছিলাম।এখন একটি এপ্লিকেশন ইউ-এস-বি স্টিকের জন্য ব্যাবহার করছি যেটি দারুন কাজের।Mojopac নামের এই এপ্লিকেশনটি কমপ্লিট ইউ-এস-বি প্যাক,এটি ইউ-এস-বি স্টিককে পরিনত করে সম্পূর্ন সিস্টেমে।আমরা সাধারনত কোন পোর্টবেল এপ্লিকেশনকেই ইউ-এস-বি স্টিকে ব্যাবহার করতে পারি।নিজের পিসিতে ইচ্ছামত এপ্লিকেশন ইনস্টল করা ও ব্যাবহার করা যায়।দরকারে অন্য কারও পিসি ব্যাবহার করলে এই সুবিধাগুলি নাও পাওয়া যেতে পারে। Read the rest of this entry »

প্যাসওয়ার্ড মনে রাখার জন্য কি-পাস

আমার ইয়াহু,জি-মেল,আই-বি-বিবো এই সমস্ত মেল প্রোভাইডারে একাধিক আইডি আছে।কোম্পাণী নিজের সুবিধা মত ব্যাঙ্ক চেজ্ঞ করে বার বার তাই ব্যাঙ্ক একাউণ্ট ও ইন্টারনেট ব্যাঙ্কিং এর আইডি প্যাসওয়ার্ড দাড়িয়েছে চারটি,অফিসে ইন্টারনেট ব্যাবহার করি প্রক্সি দিয়ে তাই এখানেও তিন-চারটি আইডি প্যাসওয়ার্ড মনে রাখতে হয়। অনলাইনে বিভিন্ন সাইটে কতই না আইডি প্যাসওয়ার্ড খুলেছি নিজেই জানি না।যে সমস্ত সাইটগুলিতে রেগুলার ভিসিট করি সেগুলিকে বাদ দিয়ে আমার অনান্য সাইটগুলির আইডি প্যাসওয়ার্ড মনে থাকে না।আর আমার মনে হয় এই প্রবলেমটা আমার মত আপনার ও হয়ে থাকে।

বেশির ভাগ ক্ষেত্রেই আমরা প্রায় সকলেই একই ধরনের আইডি ও প্যাসওয়ার্ড ব্যাবহার করে থাকি বিভিন্ন জায়গাতে মনে রাখার সুবিধার জন্য।কিন্তু এটা সত্যিই একটা খারাপ অভ্যাস,এতে প্যাসওয়ার্ড চুরি হবার বা হ্যাক হবার সম্ভবনা বেশি থাকে।

এই খারাপ অভ্যাসটি ছাড়া যেতে পারে এই KeePassPortable দিয়ে।এটি প্রটবেল হবার কারনে ইচ্ছামত যেখানে খুশি বহন করতে পারবেন।আপনার সমস্ত আইডি ও প্যাসওয়ার্ডের দায়িত্ব KeePassPortable নিয়ে নেবে।এটি ব্যাবহার করলে আপনাকে শুধুমাত্র একটি প্যাসওয়ার্ড মনে রাখলেই চলবে।

এই লিঙ্কথেকে KeePassPortable এর রার ফাইলটি ডাউনলোড করুন

কী ভাবে ব্যাবহার করবেন ?নিচের ভিডিওটি দেখুন